• মঙ্গলবার ১৪ই জুলাই, ২০২০ ইং ৩০শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

    শিরোনাম

    দিল্লি অভিমুখে পঙ্গপালের ঝাঁক

    আমিন মুনশি | ২৭ জুন ২০২০ | ৫:০৩ অপরাহ্ণ

    দিল্লি অভিমুখে পঙ্গপালের ঝাঁক

    ছবি: সংগৃহীত

    ভারতের করোনাভাইরাস সঙ্কটের মধ্যে আরও একবার উদ্বেগের কারণ হয়ে দাঁড়াল পঙ্গপাল। মাসখানেক আগে পশ্চিম ও মধ্য ভারতে উপদ্রব দেখা দিয়েছিল পঙ্গপালের। এবার ঝাঁকে ঝাঁকে পঙ্গপাল পৌঁছেছে উত্তর ভারতেও। রাজধানী দিল্লি সংলগ্ন গুরুগ্রামের আকাশ ছেয়ে গিয়েছে পঙ্গপালে। হরিয়ানার বিস্তীর্ণ অঞ্চলেও তাদের উপদ্রব বেড়েছে। তাদের হাত থকে বাঁচতে দরজা-জানালা বন্ধ করে এক রকমের গৃহবন্দি হয়ে রয়েছেন স্থানীয় মানুষ।

    গুরুগ্রামের সাইবার হাব এলাকায় শুক্রবার বিকেল থেকেই পঙ্গপালের উপদ্রব শুরু হয়। তার জেরে স্থানীয় বাসিন্দাদের দরজা-জানালা বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয় জেলা প্রশাসন। থালা-বাসন বাজিয়ে পঙ্গপাল তাড়ানোর পরামর্শও দেওয়া হয়। কিন্তু রাত পেরিয়ে গেলেও মরু পতঙ্গের দল এলাকা ছেড়ে যায়নি। বরং এ দিন সকালে গোটা এলাকা পঙ্গপালে ছেয়ে যায়। আতঙ্কে দরজা-জানালা বন্ধ করে বাড়িতেই বসে থাকেন স্থানীয়রা। এমজি রোড, ইফকো চক, ডিএলএফ ফেজ আই-৪, ভিলেজ চক্করপুর, সিকন্দরপুর, সুখরালির মতো গুরুগ্রামের ব্যস্ত এলাকাতেও এ দিন পঙ্গপাল হানা দেয়।

    বেভারলি পার্ক-২-র বাসিন্দা রীতা শর্মা সংবাদমাধ্যমে বলেন, ‘‘সকাল ১১টা নাগাদ ঝাঁকে ঝাঁকে পঙ্গপাল উড়ে বেড়াতে শুরু করে। সঙ্গে সঙ্গে জানালা-দরজা বন্ধ করে দিতে হয়। আবাসনের সাইরেন বাজিয়ে পঙ্গপাল তাড়ানোর চেষ্টা করি আমরা।’’

    সাইবার হাব এলাকায়, যেখানে বড় বড় বিল্ডিং রয়েছে, সেখানেও পঙ্গপালের উপদ্রব দেখা গিয়েছে এ দিন। ঘরের মধ্যে থেকে ছবি ও ভিডিও তুলে তা সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন অনেকেই।

    সুমিত দাস নামের এক ব্যক্তি টুইটারে একটি ভিডিও পোস্ট করেন। তাতে দেখা যায়, মাটি থেকে অনেকটা উঁচুতে ঝাঁকে ঝাঁকে পঙ্গপাল উড়ে বেড়াচ্ছে। প্রশান্ত কুমার নামের অন্য এক জন যে ভিডিও পোস্ট করেন, তাতেও একটি বাড়ির ছাদের উপর দিয়ে ঝাঁকে ঝাঁকে পঙ্গপাল উড়ে যেতে দেখা যায়।

    পঙ্গপালের উপদ্রবে গ্রামাঞ্চলে শস্যহানির আশঙ্কা রয়েছে। হরিয়ানার ঝাজ্জরে ইতোমধ্যেই পৌঁছে গিয়েছে পঙ্গপালের দল। তাদের মারতে কৃষকদের দমকল প্রস্তুত রাখতে নির্দেশ দিয়েছে রাজ্য প্রশাসন, যাতে দমকলের ইঞ্জিন থেকে কীটনাশক স্প্রে করা যায়। পঙ্গপালের বিরুদ্ধে রাজ্যের সমস্ত গ্রামে সতর্কবার্তা পৌঁছে দিতে নির্দেশ দিয়েছে রাজ্য কৃষি দফতর।

    অন্যদিকে, পড়শি রাজ্য থেকে পঙ্গপাল এসে ঢুকতে পারে আশঙ্কা করে প্রস্তুতি শুরু হয়ে গিয়েছে দিল্লিতেও। গুরুগ্রাম-দ্বারকা এক্সপ্রেসওয়েতে ইতোমধ্যেই পঙ্গপালের দেখা মিলেছে। তার জন্য সমস্ত বিমান সংস্থাগুলিকে সতর্কতামূলক নির্দেশ দিয়েছে দিল্লি এয়ার ট্র্যাফিক কন্ট্রোল। পঙ্গপালের গতিবিধি জানতে বিশেষ নজরদারি দলও গঠন করা হয়েছে। তবে এখনও পর্যন্ত দিল্লিতে বিমান পরিষেবা স্বাভাবিকই রয়েছে। সূত্র: আনন্দবাজার।

    Facebook Comments

    বাংলাদেশ সময়: ৫:০৩ অপরাহ্ণ | শনিবার, ২৭ জুন ২০২০

    qaominews.com |

    advertisement

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    advertisement
    শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
     
    ১০
    ১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
    ১৮১৯২০২১২২২৩২৪
    ২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
    advertisement

    প্রকাশক ও সম্পাদক : এ কে এম আশরাফুল হক

    ৬০/ই/১, দেওয়ান কমপ্লেক্স (৫ম তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০
    ফোন : ০১৯১১-৮২৪৬১৮, | E-mail : qaominews@gmail.com

    ©- 2020 qaominews.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।